কেরানীগঞ্জে সৎ বোন নিয়ে উধাও ভাই আটক

204

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ ঢাকার কেরানীগঞ্জে সৎ বোনের প্রেমের প্রস্তাবে প্রত্যাখ্যিত হয়ে অপহরণের অভিযোগে আটক হয়েছে রাব্বি(২২) নামের এক যুবক। রাব্বি উপজেলার আতাশুর গ্রামের হাজী মোঃ সেলিম এর ছেলে। ভিকটিম আরবি(১৪) এর মা এবং রাব্বির মা সম্পর্কে সতীন।

শুক্রবার(৮ই এপ্রিল) বিকেলে মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই আবুল কালাম আজাদের নেতৃত্বে একটি দল মাদারীপুরের শিবচর থানার শেখপুর মিজারচর গ্রামে তার মামার বাড়ি থেকে রাব্বিকে আটক করে এবং কোন প্রকার ক্ষয়ক্ষতি ছাড়াই অপহৃত কিশোরীকে উদ্ধার করে। এর আগে গত ৫ই এপ্রিল কেরানীগঞ্জ মডেল থানাধীন কালিন্দী ইউনিয়নের মুক্তিরবাগ এলাকা থেকে কিশোরী অপহৃত হলে তার মা নুরজাহান বেগম বাদী হয়ে (৭ই এপ্রিল) নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের (সংশোধনী-২০০৩) এর ৭/৩০ ধারায় একটি মামলা দায়ের করেন।

ভিকটিমের মা জানান যে , আসামি মোঃ রাব্বি আমার স্বামীর ১ম স্ত্রীর ছেলে। আমার নাবালিকা মেয়ে আরবী ( ১৪) কালিন্দী উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ ম শ্রেনীর ছাত্রী এবং আসামি রাব্বির বোন। সম্পর্কে ভাই হওয়া সত্ত্বেও সে বিভিন্ন সময় আমার মেয়েকে প্রেম নিবেদন সহ বিভিন্নভাবে উত্যাক্ত করতো । আমার মেয়ে রাব্বির প্রেম নিবেদন প্রত্যাক্ষান করায় সে আমার মেয়েকে ভয়ভীতি ও হুমকি প্রদান করে । গত ৫ এপ্রিল সন্ধ্যায় আরবি ইফতার শেষে বাড়ীর উঠানে হাটা চলা করার সময় রাব্বি অজ্ঞাতনামা ২ জনের সহায়তায় জোরপূর্বক আমার মেয়েকে সিএনজিতে করে উঠিয়ে নিয়ে যায়।

কেরানীগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু ছালাম মিয়া জানান, মামলার পর পরই তাৎক্ষণিক পদক্ষেপ নিয়ে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় আসামিকে মাদারীপুর থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ ঘটনায় আসামি কে আদালত মারফত জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। অপহৃত কিশোরী কে ডাক্তারি পরীক্ষা শেষে আদালতে প্রেরণ করা হবে।