বিদ্যুৎ যায়না বিদ্যুৎ আসে জনগনের সাথে বিদ্রুপ করতেঃ গয়েশ্বর চন্দ্র রায়

136
কেরানীগঞ্জ প্রতিনিধিঃ বিদ্যুৎ যায় না, বিদ্যুৎ আসে জনগনের সাথে বিদ্রুপ করতে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য বাবু গয়েশ্বর চন্দ্র রায়। ২৩ জুলাই (শনিবার) দুপুরে কেরানীগঞ্জের কোন্ডা ইউনিয়নের তার নিজ বাড়িতে অনুষ্ঠিত দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ উপজেলা সেচ্ছাসেবক দলের দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে তিনি কথা বলেন।
 বিদ্যুৎ নিয়ে সরকারের সমালোচনা করে তিনি বলেন, যারা লক্ষ লক্ষ কোটি টাকা লুটপাট করলো ২৬ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ নিশ্চিত করবে বলে তারা আজ বিদ্যুত না দিয়ে সবার হাতে হারিকেন ধরিয়ে দিচ্ছে। বিদুৎ প্রতিমন্ত্রী নিজে বলেছে গ্রামে ৫ ঘন্টা লোডশেডিং হয়। ৫ ঘন্টা লোডশেডিং হলে এই বিদ্যুৎ থাকার দরকারি? বর্তমান সরকার দেশকে সিঙ্গাপুর বনাতে গিয়ে আজিমপুর বানিয়ে ফেলছে।
তিনি আরও বলেন, সরকার বিদেশী শক্তির বলে আবারও ভাগ বাটোয়ারা করতে চায় কিন্তু আগে বাটোয়ারা করতে চাইলেও পরে দিবে এটা তাদের অতিত বলেনা। আর আমরা ভাগ বাটোয়ারার রাজনীতি নয় জনগণের অধিকার আদায়ে রাজনীতি করি। কে সরকার গঠন করবে তা জনগণের অধিকার হলেও বর্তমান অবৈধ সরকার দিনের ভোট রাতেই হুন্ডা-গুন্ডা পুলিশ-র‍্যাব দিয়ে বাক্স ভরে রাখে অথচ এটা তাদের কাজ না।আমরা এটা থেকে মুক্তি পেতে চাই। আমার ভোট আমি দেবো যাকে খুশি তাকে দেবো। আমার ভোট আমি দেবো, দিনের ভোট দিনে দিবো। আমার ভোট আমি দিবো, কেন্দ্রে গিয়ে নিরাপদে দিবো।
সেচ্ছাসেবক দলের কেরানীগঞ্জ উপজেলা দক্ষিণের সভাপতি মোঃ সোহেল রানার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন সেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান
 এসময় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এ্যাড. আব্দুস সালাম আজাদ, জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য নাজিম উদ্দীন নাজিম, ঢাকা জেলা সেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি আব্দুর রহমান বাবুল, সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হাসান অভি,কেরানীগঞ্জ উপজেলা দক্ষিণ বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মোজাদ্দেদ আলী বাবু প্রমুখ।
পরে পূর্বের কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক  সোহেল-শাহীনের সমন্বয় নতুন কমিটি ঘোষণা করা হয়।