ঢাকাইয়া কেরানীগঞ্জ সমিতির পিঠা উৎসব

153

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে ঢাকাইয়া কেরানীগঞ্জ সমিতির পিঠা উৎসব ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। শুক্রবার (৫ফ্রেব্রুয়ারি) বিকাল ৩টায় কেরানীগঞ্জ আমবাগিচা মহিলা ডিগ্রী কলেজ মাঠে অনুষ্ঠিত উৎসবে বাহারি সাজের হরেকরকম প্রায় ৭০ হাজার পিঠা পরিবেশন করা হয় আগত প্রায় দশ হাজার মেহমানদের মাঝে। আয়োজকদের দাবি এটাই উপমহাদেশের সব চেয়ে বড় পিঠা উৎসব।

হরেক রকমের পিঠার মধ্যে পাটিসাপটা, কুলি পিঠা, ভাবা পিঠা, ঝাল পিঠা, চিতই পিঠা, পোয়া পিঠা, তেলের পিঠা, ঝিনুক পিঠা মাংস পিঠা ও রস পিঠাসহ নানা ধরনের পিঠা খেয়ে নেচে-গেয়ে দিনটি উৎযাপন করে সংগঠনের সদস্যরা।

স্থানীয় ঢাকাইয়াদের এই উৎসবে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ( বিপু) এমপি। এসময় উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সভাপতি ও কেরানীগঞ্জ উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সাহিদুল হক সাহিদ, সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন,ইঞ্জিনিয়ার এ কে এম এ হামিদ,
সংগঠনের সদস্য ডাক্তার হাবিবুর রহমান হাবিব, সায়মন চৌধুরী প্রমুখ।

সংগঠনের সভাপতি সাহিদুল হক সাহিদ বলেন, এই আয়োজন ঢাকাইয়াদের আয়োজন। আমাদের সন্তানের মাঝে গ্রামীণ ঐতিহ্য পিঠাকে পরিচয় করিয়ে দিতে এর চেয়ে ভালো আয়োজন আর হতে পারেনা। ঢাকাইয়া কেরানীগঞ্জ সমিতি ঢাকাবাসীর একটি সংগঠন। আমাদের ঐতিহ্য রক্ষায়, ঢাকার ঐতিহ্য রক্ষায় আমরা কাজ করছি। আমরদের উদ্যেশ্য ঢাকাইয়া কেরানীগঞ্জবাসীকে এক সুতোয় বাঁধা, দল মত ভিন্ন থাকলেও আমরা থাকবো একে অপরের সুখে দুঃখে।

দিনব্যাপী এ উৎসবে বিকাল থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত নাচ, গান, আবৃত্তি ও পথনাটক প্রদর্শিত হয়।