কেরানীগঞ্জে সেনা কর্মকর্তার বাড়ীতে ডাকাতির ঘটনায় ৫ ডাকাত আটক

2077

কেরানীগঞ্জ প্রতিনিধিঃ কেরানীগঞ্জে ঢাকার কেরানীগঞ্জ মডেল থানার কলাতিয়া ইউনিয়নের জৈনপুর গ্রামের কর্নেল সাইফুল ইসলামের বাসা বাড়িতে ডাকাতির ঘটনায় জড়িত ৫ ডাকাত সদস্যকে আটক এবং ডাকাতির লুষ্ঠিত মালামালের আলামত উদ্ধার করেছে কেরানীগঞ্জ মডেল থানা পুলিশ । আটককৃতরা হলো, শানাল সিকদার(৩৮),সাহেদ জামান(৪১), দেলোয়ার হোসেন দেলু(৩৫),সুমন(৩৪) এবং মোঃ সানোয়ার(৩০)

গত ১৭ জুলাই রাত আনুমানিক ১টা থেকে ৩.৪৫ ঘটিকার মধ্যে কোন এক সময় শক্তিশালী ডাকাত দলটি ডাকাতি উক্ত ডাকাতির ঘটিয়ে নির্বিঘ্নে চলে যায়। পরে এ ঘটনায় কেরানীগঞ্জ মডেল থানায় একটি ডাকাতি মামলা রুজু হলে পুলিশ সর্বাত্মক তদন্ত শুরু করে । তদন্তের এক পর্যায়ে ডাকাত দলের অন্যতম সদস্য ১। শানাল সিকদার কে তথ্য প্রযুক্তি ও গােপন সংবাদের ভিত্তিতে কেরানীগঞ্জ মডেল থানাধীন তালেপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয় । জিজ্ঞাসাবাদে শানাল সিকদার ডাকাতি সম্পর্কে কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দেয় । তার দেওয়া তথ্যমতে ডাকাত দলের অন্যতম সদস্য সাহেদ জামান ও দেলােয়ার হােসেন দেলু কে রুহিতপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয় । গ্রেফতাকৃত উভয়ই তাদের জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি প্রদান করে । উক্ত জবানবন্দির ভিত্তিতে ঘটনার সাথে জড়িত এবং মূল পরিকল্পনাকারী মােঃ সুমন ও মােঃ সানােয়ার কেও রুহিতপুর এলাকা হতে গ্রেফতার করে আদালতে প্রেরণ করা হলে তারাও তাদের সম্পৃক্ততা স্বীকার করে

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও কেরানীগঞ্জ মডেল থানাধীন কলাতিয়া পুলিশ ফাঁড়ির এসআই চুনু মিয়া জানান, গ্রেফতারকৃত ডাকাতরা জিজ্ঞাসাবাদে চাঞ্চল্যকর তথ্য দিয়েছে এবং তাদের তথ্যের ভিত্তিতে ডাকাতদলের অন্যান্য সদস্যদের গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত আছে ।

থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ আবু সালাম মিয়া জানান, দুর্ধর্ষ ডাকাত দলটি দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন এলাকায় রাতের আধারে মানুষের বাসা বাড়িতে প্রবেশ করে সর্বস্ব লুটে নিত । গভীর রাতে মানুষ যখন নির্বিগ্নে ঘুমিয়ে পড়ে ডাকাত দল সক্রিয় হয়ে বাসা বাড়িতে প্রবেশ করে মালিকের নগদ টাকা , স্বর্ণলংকার , মােবাইল ফোন ও অন্যান্য মূল্যবান জিনিসপত্রসহ সর্বস্ব লুটে নিয়ে পালিয়ে যেত । তাদের আটকের ফলে কিছুটা স্বস্থির নিশ্বাস নিতে পারবে কেরানীগঞ্জবাসী।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহাবুদ্দিন কবির (কেরানীগঞ্জ সার্কেল) জানান , এই ডাকাত দলটি কেরানীগঞ্জবাসীর রাতের বেলা বিভিন্ন বাসাবাড়িতে রীতিমত আতঙ্ক হয়ে দাড়িয়েছিল । আমরা তথ্য – প্রযুক্তির সহায়তায় ডাকাতির সাথে জড়িত পাঁচ জনকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়েছি । ঘটনার সাথে জড়িত পলাতক আসামীদের গ্রেফতার অভিযান অব্যাহত আছে । এর ফলে কেরানীগঞ্জে জনসাধারন গভীর রাতে নির্বিগ্নে ঘুমাতে পারবে । তদন্তের স্বার্থে এ মূহুর্তে বিস্তারিত প্রকাশ করা যাচ্ছে না ।