কেরানীগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে যুবককে কুপিয়ে হত্যা

7261

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ ঢাকার কেরানীগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনার জেড়ে প্রতিপক্ষের ছুড়িকাঘাতে মুরাদ(১৮) নামে এক যুবক নিহত হয়েছে। ২৭ জুলাই বুধবার দুপুর ২ টার দিকে উপজেলার শাক্তা ইউনিয়নের দেওয়ান বাড়ি নড়ন্ডী মোড়ে এ ঘটনা ঘটে। এ সময় আরও তিন যুবক আহত হয়েছে বলে জানা গেছে। আহতদের মধ্য নাফিও(১৮) আশংকাজনক ভাবে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। নিহত মুরাদের পিতার নাম মজিবুর রহমান এবং আহত নাফিওর পিতার নাম নজরুল ইসলাম। তারা উভয়ই শাক্তা গ্রামের বাসিন্দা।

নিহতের স্বজনরা জনিয়েছে, সকালে জাতীয় পরিচয় পত্রের ছবি তোলার জন্য মুরাদ,নাফিওসহ আরও কয়েকজন নয়াবাজার ডিগ্রি কলেজে যায়। এসময় লাইনে দাঁড়ানোকে কেন্দ্র করে শিলারিটোলা গ্রামের সাহেব আলী,রায়হান, সাগর,মিলন,সিয়াম ও আজয়ের সাথে কথা কাটাকাটি হয় তাদের। পরে ছবি তুলে বাড়ি ফেরার পথে আগে থেকে ওতপেতে থাকা সাহেব আলী, সাগর, রায়হান ও তার সহপাঠীরা তাদেরকে উপুর্যুপরি ছুড়িকাঘাত করে পালিয়ে যায়। এতে মারাত্মকভাবে আহত অবস্থায় মুরাদ ও রাফিওকে হাসপাতালে নেওয়ার পথে মুরাদের মৃত্যু হয়।রাফিওর অবস্থাও আশংকাজনক বলে জানা গেছে।

অপর একটি সূত্র জানিয়েছে, মেয়ে ঘটিত কারণে এ হত্যাকান্ড।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কেরানীগঞ্জ (সার্কেল) শাহাবুদ্দিন কবির জনিয়েছেন, আমাদের দুটি টিম এই হত্যাকান্ড নিয়ে কাজ করছে। এখনো পর্যন্ত হত্যাকাণ্ডের কারণ জানা যায়নি। এবং কেউ অভিযোগও করেনি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।